5.3k বার ভিউ
"ইসলাম ধর্ম" বিভাগে করেছেন
আমি একটি হাদিস শরিফে শুনেছি, কোনো প্রাণীর ছবি যদি বাড়িতে থাকে, তাহলে সেখানে রহমতের ফেরেশতা ঢোকে না। কিন্তু আবার একজন ইমামের কাছে শুনেছি, বাজারের প্যাকেটে যদি মানুষের বা কোনো প্রাণীর ছবি থাকে এবং সেই প্যাকেট নিয়ে মসজিদে যাওয়ার পর সেটা নামাজের সময় দেখা গেলে নাকি নামাজ হবে না। আসলে ছবি তোলা, রাখা বা ঘরে টানিয়ে রাখাটা কি জায়েজ আছে? ছবি সম্পর্কে একটু বিস্তারিত জানালে উপকৃত হব।

image


1 উত্তর

1 টি পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
করেছেন
 
সর্বোত্তম উত্তর

এই হাদিস সহিহ। এটি আবু দাউদ তাঁর সুন্নাহর মধ্যে বর্ণনা করেছেন। যদি কারো ঘরের মধ্যে এভাবে ছবি ঝুলিয়ে রাখা হয়ে থাকে, তাহলে সেখানে রহমতের ফেরেশতা ঢোকেন না। এটি রাসূল (সা.) বলেছেন।

আর প্যাকেটে ছবি থাকলে এবং সেটি নিয়ে মসজিদে প্রবেশ করলে নামাজ হবে না, এই মর্মে কোনো হাদিস সাব্যস্ত হয়নি। এটি ইমাম সাহেব নিজেই তৈরি করে বলেছেন। এ ধরনের কোনো প্যাকেটের মধ্যে যদি ছবি থাকে আর সেটি যদি মনোযোগ নষ্ট করার আশঙ্কা থাকে, তাহলে সালাতের ক্ষতি হতে পারে। সে ক্ষেত্রে উচিত হচ্ছে প্যাকেটটি এমনভাবে রাখা যাতে করে মুসল্লির মনোযোগ নষ্ট না করে। মসজিদের মধ্যে সেটাকে হেফাজত করা।

মসজিদের আদব হচ্ছে মসজিদের ভেতরে কেউ ছবি নিয়ে প্রবেশ করবেন না। কারণ, ১০০ ছবি নিয়ে যদি কেউ প্রবেশ করে, তাহলে মসজিদের অবস্থা কী হবে? মসজিদে সালাতের জন্য মানুষ প্রবেশ করবেন। সে ক্ষেত্রে যদি কোনো কারণে কেউ বাধ্য হয়ে যায়, তাহলে তাঁর জন্য উচিত হচ্ছে সে ছবিকে তিনি এমনভাবে রাখবেন, যাতে কোনোক্রমেই এটি দৃষ্টি আকর্ষিত না হয়। নামাজ হবে না, এটি বাড়তি কথা। 

আপনার বিভিন্ন সমস্যার সমাধান বা অজানা উত্তরের জন্য বিনামূল্যে আমাদের প্রশ্ন করতে পারবেন। প্রশ্ন করতে দয়া করে প্রবেশ, কিংবা নিবন্ধন করুন।

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

9.6k টি প্রশ্ন

7.5k টি উত্তর

250 টি মন্তব্য

1.2k জন সদস্য

প্রশ্ন করুন
ক্যোয়ারী অ্যানসারস এ সুস্বাগতম, এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন, বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।

বিভাগসমূহ

ক্যোয়ারী অ্যানসারস এ প্রকাশিত সকল প্রশ্ন বা উত্তরের দায়ভার একান্তই ব্যবহারকারীর নিজের, কোনভাবেই ক্যোয়ারী অ্যানসারস দায়বদ্ধ নয়।
...